সুপার কাপের শিরোপা রিয়ালের


অথর
ফুটবল ডেক্স   ক্রীড়া অঙ্গন
প্রকাশিত :১৪ জানুয়ারি ২০২০, ১:২৩ অপরাহ্ণ
সুপার কাপের শিরোপা রিয়ালের

আক্রমণ-পালটা আক্রমণে দারুণ জমে উঠেছিল লড়াই। কিন্তু গোলের দেখা মিলছিল না কিছুতেই। নির্ধারিত সময়ের পর অতিরিক্ত সময়েও গোল নেই। শেষ অব্দি টাইব্রেকার ভাগ্যতেই হাসিমুখ রিয়াল মাদ্রিদ সমর্থকদের। অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদকে হারিয়ে স্প্যানিশ সুপার কাপ জিতেছে জিনেদিন জিদানের দল রোববার রাতে সৌদি আরবের কিং আব্দুলস্নাহ স্পোর্টস সিটি স্টেডিয়ামে টাইব্রেকারে ৪-১ গোলে জয় তুলে নেয় রিয়াল।
এর আগে দুদলই গোলের ভালো কিছু সুযোগ পেয়েও কাজে লাগাতে পারেনি। ম্যাচের শেষ কিছু মিনিট রিয়ালকে খেলতে হয় দশজন নিয়ে। কারণ ১১৫তম মিনিটে আলভারো মোরাতাকে ফাউল করে সরাসরি লাল কার্ড দেখেন ফেদেরিকো ভালভার্দে। তবে একজন বেশি নিয়েও কোর্তোয়াকে পরাস্ত করতে পারেনি অ্যাটলেটিকো।
ভাগ্য পরীক্ষার শুটআউটে চারটি শট

নিয়ে প্রতিটিতেই গোল করে স্প্যানিশ জায়ান্টরা। নিশানা খুঁজে নেন দানি কারভাহাল, রদ্রিগো, লুকা মদ্রিচ ও সার্জিও রামোস। অ্যাটলেটিকোর প্রথম শটটি নিতে গিয়ে হতাশ করেন সাউল নিগেস। এরপর থমাসের শটটিও আটকে দেন থিবো কোর্তোয়া। এরপর কিরান ট্রিপিয়ার গোল করলেও লাভ হয়নি।ইতিহাস জানাচ্ছে- রিয়ালের এটি একাদশ স্প্যানিশ সুপার কাপ। আর দুটি ট্রফি জিতলেই সান্টিয়াগো বার্নাবু্যর ক্লাবটি ছুঁয়ে ফেলবে বার্সেলোনাকে।
দ্বিতীয়বারের মতো রিয়াল মাদ্রিদের কোচ হয়ে প্রথম শিরোপার দেখা পেলেন জিদান। এই ফরাসি কিংবদন্তি ফুটবলারের কোচিংয়ে দশম শিরোপা ট্রফি জিতল রিয়াল।
গোল না পেলেও ম্যাচের পুরোটা সময়জুড়ে দাপট ছিল রিয়ালেরই। কিন্তু ফুটবল তো গোলের খেলা। এখানে গোল চাই। কিন্তু সেই লড়াইয়ে নগরের অন্য

দল অ্যাটলেটিকোকে বোকা বানাতে পারছিল না তারা। এরপরও স্বস্তি টাইব্রেকারে জয় ধরা দিল। এবারই প্রথম প্রথা ভেঙে স্প্যানিশ সুপার কাপ নতুন আঙ্গিকে চার দল নিয়ে হলো দেশের বাইরে। যেখানে সেমিফাইনালে ভ্যালেন্সিয়াকে ৩-১ গোলে ফাইনালে উঠে আসে রিয়াল। রোববার জিতে নিয়েছে শিরোপাও! আরেক সেমিতে ৩-২ গোলে জিতে বার্সেলোনাকে বিদায় করে দিয়েছিল অ্যাটলেটিকো।যদিও তিনসেরা তারকা গ্যারেথ বেল, করিম বেনজেমা ও ইডেন হ্যাজার্ডকে ছাড়াই এই টুর্নামেন্টে খেলেছে স্পেনের সবচেয়ে সফল ক্লাবটি। তাদের অভাবটা টেরই পাওয়া গেল না স্প্যানিশ সুপার কাপে!